উদ্যোক্তা হতে বের হয়ে আসুন বৃত্তের বাইরে!

আমাদের অনেকের ধ্যান ধারণা ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, কিংবা ব্যাংকার এ পেশাগুলোর মধ্যেই লুকিয়ে আছে অর্থনৈতিক এবং সামাজিক সফলতা। কিন্তু এ পেশার বাইরে যারা কাজ করছেন তারা কি?

ছোট বেলা থেকেই আপনার মনে ঢুকিয়ে দেওয়া হয় এ সকল পেশায় স্ম্মান আর্থ দুটোই আছে। আপনার ভেতরের ঘুমন্ত প্রতিভাকে গলাটিপে হত্যা করা সেই সময়েই। তাহলে আপনি কিভাবে উদ্যোক্তা হবেন?

বেরিয়ে আসুন বৃত্তের বাইরে যদি উদ্যোক্তা হতে চান। আপনার মেধা আর সাহস নিয়ে ঝুঁকি মোকাবেলা করতে শিখুন। আমাদের অনেকের মনে আরও একটা অন্ধ বিশ্বাস জমে গেছে সেই বহু আগে থেকেই। যারা যে বিষয় নিয়ে পড়াশুনা করেছেন তারা সেই সেই সেক্টর নিয়ে কাজ করবেন।

যারা ব্যবসায় শাখায় পড়াশুনা করেছেন শুধুমাত্র তারাই উদ্যোক্তা হবেন। আর যে ছেলে বা মেয়েটি মানবিক শাখায় পড়াশুনা করেছে সে তো সর্বোচ্চ গাধা। বছর বছর ফেল করেছে। জগতের সবচেয়ে খারাপ এ জায়গার শিক্ষার্থীদের মনে করা হয়। কিন্তু কেন এ ধারনা?

ক্লাশের সবচেয়ে খারাপ ছাত্র মার্ক জুকারবার্গ যার মাথা থেকে আসা আইডিয়া সারা বিশ্বের মানুষকে এক জায়গাতে এনেছে। সাথে তার আয় এখন যে পর্যায়ে তাতে সারা বিশ্বের শীর্ষ দশ ধনী ব্যাক্তির একজন সে।

আইনষ্টাইন যে কিনা নিজের বাড়ির নাম ঠিকানা মনে রাখতে পারতেন না সেই কিনা বিজ্ঞানের ক্ষেত্রে রেখে গেছেন সর্বোচ্চ অবদান।

আমাদের দেশের সফল ব্যবসায়ীদের অতীতের দিকে যদি তাকাই তাহলে তাদের অনেকেই শুধুমাত্র নিজের প্রচেষ্টায় সফল হয়েছেন।

সিদ্ধান্ত এখন আপনার কাছে, আপনার নির্দেশকদের চাপিয়ে দেওয়া বোঝা বয়ে বেড়াবেন নাকি আপনি সেই গাধা ছাত্রে হয়ে থাকার কলঙ্ক মুছবেন?

আপনার সৃজনশীল দৃশ্টিভঙ্গি, অদম্য ইচ্ছাশক্তি কাজে লাগিয়ে সাহসী উদ্যোগ, কঠোর পরিশ্যম, সততা, আর ধৈর্য্য ধরে লেগে থাকার মানসিকতা তৈরী করতে পারলেই হয়ে উঠতে পারবেন একজন সফল উদ্যোক্তা।

তথ্যসূত্র: ইন্টারনেট।

SHARE