1. editor@islaminews.com : editorpost :
  2. jashimsarkar@gmail.com : jassemadmin :
সফলতার গল্প :

পাকিস্তান কয়েক ট্রিলিয়নের সম্পদ বিক্রি করছে।

পাকিস্তানের বিভিন্ন কেন্দ্রীয় মন্ত্রণালয় ও সংশ্লিষ্ট বিভাগের কয়েক ট্রিলিয়ন রুপি মূল্যের সম্পদ বিক্রির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। দেশটির ভঙ্গুর অর্থনীতিকে চাঙা করতে রাজস্ব বাড়ানোর উদ্দেশ্যে গত মঙ্গলবার মন্ত্রিসভার বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। মন্ত্রিসভার বৈঠকের পর দেশটির তথ্যমন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধুরী সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের প্রধান নিয়োগপ্রক্রিয়ায় পরিবর্তন আনার বিষয়টিও সর্বসম্মতভাবে পাস হয় ওই মন্ত্রিসভায়। পরিবর্তিত ওই প্রক্রিয়ায় দপ্তরগুলোর প্রধান নিয়োগে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীদের ক্ষমতা দেওয়া হয়েছে।

গ্যাসের অতিরিক্ত ‘ভুতুড়ে’ বিল পরিশোধের জন্য তিন মাস ধরে দেশটির ৩২ লাখ গ্রাহক যে হিমশিম খাচ্ছেন, সেই বিষয়টিও উঠে আসে মন্ত্রিসভার আলোচনায়। এই কেলেঙ্কারির সঙ্গে জড়িত দায়ী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের সিদ্ধান্ত হয়।

মন্ত্রিসভার বৈঠকের পর সেখানে আলোচনা হওয়া বিষয়গুলোর বিস্তারিত সংবাদ সম্মেলনে তুলে ধরেন তথ্যমন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধুরী। তিনি বলেন, কেন্দ্রীয় মন্ত্রণালয় ও সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানগুলোর অব্যবহৃত সম্পদ বিক্রি করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এ জন্য মন্ত্রণালয়গুলোর কাছে ওই সব সম্পদের তালিকা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। মন্ত্রণালয়গুলো ইতিমধ্যে সেই সব সম্পদের তালিকা তৈরি করে তা মন্ত্রিপরিষদের কাছে জমাও দিয়েছে বলে জানান তথ্যমন্ত্রী।

যথাযথ দেউলিয়াপ্রক্রিয়া গ্রহণ ছাড়া কীভাবে সরকারি এসব সম্পদ বিক্রি করা হবে? এমন প্রশ্নে পাকিস্তানের তথ্যমন্ত্রী বলেন, এসব সম্পদ বিক্রির জন্য সরকার প্রথমে একটি সর্বজনীন নীতি প্রণয়ন করবে।

কারণ প্রতিটি সরকারি প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব নিয়ম অনুযায়ী তাদের অব্যবহৃত সরকারি সম্পদ বিক্রি করতে গেলে সরকারের পরিকল্পনা ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে। ওই সর্বজনীন নীতিমালায় বলা থাকবে, কোন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে বিক্রি করা হবে ওই সম্পদ।

সরকারি ওই সম্পদ বিক্রির জন্য পাঁচ মন্ত্রীর সমন্বয়ে একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। ওই কমিটিই নীতিমালা প্রণয়ন থেকে শুরু করে সম্পদ বিক্রির কাজ তদারকি ও নিয়ন্ত্রণ করবে।

More News Of This Category