1. [email protected] : editorpost :
  2. [email protected] : jassemadmin :

ব্যাকপেইন হলে করণীয়!

আমরা যারা দীর্ঘ সময় বসে কাজ করি অথবা প্রচুর জার্নি করি সবারই হতে পারে ব্যাকপেইন। ব্যাকপেইন হলে প্রথমেই ব্যথানাশক ওষুধ না খেয়ে কিছু নিয়ম মেনে চলুন, কয়েকটি সহজ ব্যায়ামও করতে পারেন।

সেঁক ও বরফ : ব্যাকপেইন সারাতে গরম পানির সেঁক ও বরফ দেওয়া যেতে পারে।
ডাক্তারের পরামর্শে ব্যায়াম : ব্যাকপেইন নিরাময়ে চিকিৎসকের পরামর্শে ব্যায়াম করা যেতে পারে। ব্যথা ভালো হওয়ার জন্য অনেক সময় ব্যায়াম খুব কাজে দেয়। যেমন: পায়ের আঙুলের ওপর ভর দিয়ে দাঁড়ান। এভাবেই ২০ সেকেন্ড হেঁটে ১০ সেকেন্ড বিশ্রাম নিন। পাঁচ বার ব্যায়ামটা করুন।

চিৎ হয়ে শুয়ে পড়ুন। এবার গোড়ালি শূন্যে তুলে তা ১০ সেকেন্ড ধরে ক্লকওয়াইজ ঘোরাতে থাকুন। এবার একই সময় ধরে গোড়ালিটা অ্যান্টি-ক্লকওয়াইজ ঘোরান। এভাবে দিনে দু’বার এই ব্যায়াম করুন। কনুইয়ের ওপর ভর দিয়ে শরীরের ওপরের অংশ (যতটুকু পারেন) আস্তে আস্তে ওপরে তুলুন। দুই-তিন মিনিট এভাবেই থাকুন।

বাইসাইকেল ও মোটরসাইকেল চালানোর কারণে ব্যাকপেইন হতে পারে। এক্ষেত্রে বাইসাইকেল চালানো কিছুদিনের জন্য বন্ধ করতে হবে। সব সময় সোজা হয়ে বসুন। কিছুক্ষণ পরপর ডেস্ক ছেড়ে উঠুন, একটু হাঁটুন। পর্যাপ্ত বিশ্রাম নিন। কয়েকদিন অপেক্ষার পরও যদি ব্যথা না কমে সময় নষ্ট না করে অবশ্যই বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নিন।

তথ্যসূত্র: বাংলানিউজ২৪ডটকম।

More News Of This Category