মুখ খুলবেন না যে সময়!

‘বেশি কথায় বেশি দোষ, ভেবে-চিন্তে কথা কস’- প্রবাদটি হয়তো সবাই জানি। তবুও মুখ ফসকে অনেক কথাই বেরিয়ে যায়। যেখানে কথা না বলাই ভালো, সেখানেও বলে ফেলেন অনেকেই। তাই মাঝে মাঝে কথা বলা বন্ধ রাখা উচিত।

সম্প্রতি কমিউনিকেশন বিশেষজ্ঞ জেন ফ্লোরেস্কা জানান, জীবনের কয়েকটি ক্ষেত্রে যদি আমরা মুখ না খুলি, তাহলে তা আমাদের জন্য লাভজনক। আজ ফ্লোরেস্কার ৫টি পরামর্শ তুলে ধরা হলো-

১. কারো মৃত্যুর পরে তার আত্মীয়-স্বজনের সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে নীরবতা পালন করাই ভালো। অবান্তর সান্ত্বনা দেওয়ার চেয়ে চুপচাপ থাকাই বুদ্ধিমানের কাজ।

২. নিজেকে যখন বিভ্রান্ত বলে মনে করছেন, তখন চুপ করে থাকুন। এ সময়ে কথা বলতে গেলে বরং বিড়ম্বনা বাড়বে। জটিলতা আপনাকে ঘিরে ধরবে।

৩. কোনো আলোচনা যদি মনোগ্রাহী হতে থাকে, তখন চুপচাপ শুনে যান। এতে আপনার জন্যই উপকার বয়ে আনবে। অযথা আলোচনার মাঝে কথা বলতে গিয়ে বিরাগভাজন হবেন না।

৪. যে কোনো কাজের সময়ে যতটা পারেন কম কথা বলুন। একে মনঃসংযোগ বাড়বে। আর দিনের শেষে ক্লান্তিবোধও কম হবে।

৫. যেখানে সেখানে অযথা কথা, বাজে তর্ক, উড়ো ঝগড়া ইত্যাদির সময়ে মুখ না খোলাই ভালো। তাহলে অহেতুক ঝামেলা থেকে বেঁচে যাবেন।

তথ্যসূত্র: ইন্টারনেট।

SHARE