1. [email protected] : editorpost :
  2. [email protected] : jassemadmin :

লাভজনক কসমেটিক-প্রসাধনী ব্যবসার আইডিয়া!

সৌন্দর্য্য মানুষের একটি বাহ্যিক গুণ। ফ্যাশন সচেতনতার এই যুগে মানুষ জৈবিক পরিচিতির সঙ্গে শারীরিক সৌন্দর্য্যকেও সমানতালে গুরুত্ব দিয়ে থাকে। সৌন্দর্য্য প্রকাশের মাধ্যম কেবল পোশাক-পরিচ্ছেদেই সীমাবদ্ব নয়। আধুনিকায়নের ফলে সৌন্দর্য্য প্রকাশের উপাদান হিসেবে দিন দিন নানা ধরনের কসমেটিকসের চাহিদা বাড়ছে।

নানা ধরনের প্রসাধন সামগ্রী আর কসমেটিকের সমাহার নিয়ে আপনিও শুরু করতে পারেন চাহিদা বহুল একটি বিউটি বিজনেস। আপনার মনের মত করে সাজিয়ে তুলতে পারেন একটি বিউটি বিজনেস সেন্টার। এরকম ১০ টি লাভ জনক বিউটি বিজনেসের ধারণা নিয়ে নিচে আলোচনা করা হল।

কসমেটিকস স্টোর – প্রসাধনী ব্যবসা: কসমেটিকস বা বিউটি সাপ্লাই স্টোর বিজনেস সারা বিশ্বে জনপ্রিয়। এটি শহর বা মফস্বলের ছোট কোন মার্কেটে সহজেই শুরু করা যায়। আপনি এই ব্যবসাটি অনলাইনেও শুরু করতে পারেন। একটি কসমেটিকস স্টোর শুরু করতে হলে রেজিস্ট্রেশন ও লাইসেন্স অবশ্যই প্রয়োজন। আপনি এই ব্যবসায় সফল হতে চাইলে একটি শক্তিশালী মার্কেটিং কৌশল নির্ধারণ করতে হবে।

স্কিন কেয়ার পণ্য ব্যবসা – প্রসাধনী ব্যবসা: বর্তমান সময়ে মানুষ ত্বকের প্রতি অধিকতর সচেতন ও যত্নশীল। একারণে বিভিন্ন প্রসাধন সামগ্রীর প্রতি আগ্রহও বাড়ছে। স্বল্প মূলধন বিনিয়োগ করে আপনিও শুরু করতে পারেন স্কিন কেয়ার প্রোডাক্টস উৎপাদন ও সরবরাহ ব্যবসাটি। খুচরা ও পাইকারি দোকানে এসব পণ্য সরবরাহ করে আপনি অর্থনৈতিক ভাবে স্বাবলম্বী হতে পারেন। তাছাড়া এই ব্যবসা পার্ট টাইম এ করা যেতে পারে।

মেকআপ আর্টিস্ট – প্রসাধনী ব্যবসা: বিভিন্ন প্রসাধনী ও কসমেটিকস পণ্যের সরবরাহ নিয়ে আপনার বাড়ি থেকেই একজন মেকআপ আর্টিস্ট হিসেবে শূরু করতে পারেন। একজন মেকআপ আর্টিস্ট হিসেবে সফল হতে হলে স্থানীয় বিবাহের অনুষ্ঠান ও বিশেষ ইভেন্ট গুলোকে টার্গেট করে কর্মপরিকল্পনা সাজাতে হবে। বর্তমান সময়ে এটি একটি চাহিদাবহুল ব্যবসার ধারণা।

ট্রেনিং পার্লার – প্রসাধনী ব্যবসা: একটি ট্রেনিং পার্লার হতে পারে বিউটি বিজনেসের জন্য একটি সঠিক ও কার্যকরী সিদ্ধান্ত। অত্যাধুনিক প্রযুক্তি ও সঠিক দক্ষতাকে কাজে লাগিয়ে আপনিও শুরু করতে পারেন জনপ্রিয় এ ব্যবসাটি।

হেয়ার রিমুভাল সার্ভিস – প্রসাধনী ব্যবসা: হেয়ার রিমুভাল সার্ভিস বিজনেসটি শুরু করার জন্য সঠিক জ্ঞান এবং দক্ষতাই যথেষ্ট। স্থায়ীভাবে চুল অপসারণ যন্ত্র ও লেজার সরজ্ঞাম নিয়ে সহজেই এই ব্যবসাটি শুরু করা যায়। এটি নারী ও পুরুষ সকলের কাছে সমানভাবে জনপ্রিয় একটি ব্যবসা ক্ষেএ। হেয়ার রিমুভাল সার্ভিস অত্যন্ত লাভজনক একটি ব্যবসা ধারণা।

ফিটনেস সেন্টার: বর্তমান সময়ের মানুষ স্বাস্থ্য সম্পর্কে খুবই সচেতন। সুস্বাস্থ্য মানুষের বাহ্যিক সৌন্দর্য্যকে বহুগুণে বাড়িয়ে তুলে। আপনার নিজের ব্যবসা শুরু করার জন্য এটিকে একটি সুযোগ হিসেবে নিতে পারেন। মূলত এটি একটি গৃহ কেন্দ্রিক ব্যবসা ধারণা। শারীরিক ফিটনেসের প্রতি যদি আপনার ভালবাসা না থাকে তাহলে এই ব্যবসায় সফল হওয়া কঠিন। শারীরিক ব্যায়ামের জন্য প্রয়োজনীয় কিছু সরজ্ঞাম নিয়ে সহজেই ফিটনেস সেন্টার ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

মোবাইল ফেসিয়াল স্পা – প্রসাধনী ব্যবসা: সময়ের অভাবে যারা ত্বকের যত্ন নিতে পারেন না তাদের জন্যই মোবাইল ফেসিয়াল স্পা সার্ভিসটি। এই ব্যবসাটি শুরু করতে হলে গ্রাহকদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে সেবা প্রদানের মানসিকতা থাকতে হবে। এই ব্যবসায় সফল হতে হলে যথাযথ প্রশিক্ষণ ও দক্ষতা থাকা প্রয়োজন। আপনার মোবাইল ফেসিয়াল স্পা সার্ভিসটিকে আরো গ্রাফিক্যাল করতে হলে কিছু উচ্চতর সরজ্ঞাম প্রয়োজন হতে পারে।

মেনিকিউর পেডিকিউর সেলুন ব্যবসা – প্রসাধনী ব্যবসা: নারী-পুরুষ উভয়ের কাছেই একটি মেনিকিউর পেডিকিউর সেলুন সমান গুরুত্ব বহন করে। আপনার বাড়িতে ছোট্ট একটি জায়গায় সহজেই একটি মেনিকিউর পেডিকিউর সেলুন চালু করা যেতে পারে। আপনার এই সেবাটি অনেক বেশি গ্রাহকের কাছে পৌঁছে দিতে চাইলে, ব্যস্ততার কারণে যারা আসতে পারে না তাদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে সেবা প্রদান করতে পারেন।

মোবাইল ফুট মেসেজ – প্রসাধনী ব্যবসা: স্বাধীন পেশা হিসেবে আপনি মোবাইল ফুট মেসেজ ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন। যারা তাদের পায়ের প্রতি বিশেষ যত্নশীল তারাই আপনার এই ব্যবসার মূল গ্রাহক। এছাড়াও বৃদ্ধ, পায়ের ছোট ছোট আঘাতে আক্রান্ত অথবা যারা এই সেবাটি গ্রহণ করে আরাম অনুভব করেন তারাও আপনার এই ব্যবসার গ্রাহক হতে পারেন। এই ব্যবসাটি শুরু করতে হলে অভিজ্ঞতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

ইমেজ কনসালটেন্ট: একজন ইমেজ কনসালটেন্ট হিসেবে পেশা শুরু করতে হলে আপনাকে গ্রাহকের ফ্যাশন শৈলী ও চাহিদা সম্পর্কে অবগত হতে হাবে। গ্রাহকের সৌন্দর্য্য পরিবর্তনে সহায়ক, পোশাকের ফিটনেস, কালার কম্বিনেশন ইত্যাদি বিষয় গুলো সম্পর্কে আপনাকে অভিজ্ঞ হতে হবে। এটি একটি চাহিদা বহুল ব্যবসাক্ষেত্রে।

More News Of This Category