1. [email protected] : editorpost :
  2. [email protected] : jassemadmin :

আরো একটি অর্থনৈতিক অঞ্চল করছে সিটি গ্রুপ

প্রাথমিকভাবে ১০ হাজার কোটি টাকার বিনিয়োগ নিয়ে আরো একটি বেসরকারি অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপন করতে যাচ্ছে সিটি গ্রুপ। সিমেন্ট, সিরামিক, সল্ট অ্যান্ড কেমিক্যাল, শিপ বিল্ডিং ইন্ডাস্ট্রিসহ ১০টি শিল্প ইউনিট স্থাপন করা হবে এ শিল্পাঞ্চলে। ১০০ মেগাওয়াটের একটি বিদ্যুৎকেন্দ্রও থাকবে এখানে। ঢাকা থেকে মাত্র ২৫ কিলোমিটার ও চট্টগ্রাম থেকে ১৫০ কিলোমিটার দূরত্বে মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলায় নির্মিতব্য এ অর্থনৈতিক অঞ্চলে ১৫ হাজার মানুষের কর্মসংস্থান হবে।

বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা) গতকাল সিটি গ্রুপের মলিকানাধীন হোসেন্দী ইকোনমিক জোনকে প্রাক-যোগ্যতাপত্র প্রদান করেছে। এখন সম্ভাব্যতা যাচাই শেষে চূড়ান্ত সনদ দেয়া হবে। হোসেন্দী ইকোনমিক জোনের চেয়ারম্যান শম্পা রহমানের কাছে প্রাক-যোগ্যতাপত্র হস্তান্তর করেন বেজার নির্বাহী চেয়ারম্যান পবন চৌধুরী। সিটি গ্রুপের চেয়ারম্যান ফজলুর রহমান এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

হোসেন্দী ইকোনমিক জোন সিটি গ্রুপের দ্বিতীয় অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রকল্প। এর আগে গ্রুপটির ‘সিটি অর্থনৈতিক অঞ্চল’ বেজার অনুমোদন পেয়েছিল।

প্রাক-যোগ্যতাপত্র হস্তান্তর অনুষ্ঠানে বেজার চেয়ারম্যান জানান, একটি ইকোনমিক জোনের কাজ শেষ না হওয়া পর্যন্ত আরেকটি স্থাপনের অনুমতি না দেয়ার সিদ্ধান্ত থাকলেও সিটি গ্রুপ তার পরিচ্ছন্ন ভাবমূর্তির কারণেই দ্রুত আরো একটি ইকোনমিক জোন স্থাপনের অনুমতি পেয়েছে। পবন চৌধুরী জানান, এ পর্যন্ত ১৯টি প্রতিষ্ঠানকে প্রাক-যোগ্যতাপত্র দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে সাতটি চূড়ান্ত লাইসেন্স পেয়েছে।

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে প্রাথমিকভাবে ১০৮ একর জমির ওপর নির্মিতব্য হোসেন্দী ইকোনমিক জোনে নারী উদ্যোক্তাদের জন্য বিশেষ সুযোগ দেয়া হবে বলে জানান সিটি গ্রুপের চেয়ারম্যান ফজলুর রহমান। এরই মধ্যে চীন, থাইল্যান্ড ও জাপানের বিনিয়োগকারীরা এখানে বিনিয়োগের আগ্রহ প্রকাশ করেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ভবিষ্যতে এ ইকোনমিক জোনকে ১৫০ একরে উন্নীত করা হবে।

More News Of This Category